বইয়ে খোঁজার সময় নাই
সব কিছু এখানেই পাই

সাধারণ জ্ঞান : রাজনৈতিক ও আঞ্চলিক সংগঠন

আরব লীগের অন্তর্ভুক্ত নয়? – ইরান।

আরব লীগের সদর দফতর কোন শহরে অবস্থিত? – কায়রো।

বাংলাদেশ OIC-এর সদস্যপদ লাভ করে কবে? – ১৯৭৪ সালে।

NAM এর বর্তমান সদস্য কত? – ১২০টি দেশ।

বাংলাদেশ কোন্ বছরে কমনওয়েলথের সদস্যপদ লাভ করে? – ১৮৭২ সালে।

কোন্ দেশটি কমনওয়েলথ অব ইনডিপেনডেন্ট স্টেটস (CIS) এর সদস্য রাষ্ট্র? – বেলারুশ।

কোন্ আন্তর্জাতিক সংস্থা একুশে পদক-২০০৩ লাভ করেছে? – UNESCO

অষ্টম ইসলামী শীর্ষ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয় – তেহরানে।

জোট নিরপেক্ষ আন্দোলনের সদর দফতর  কোথাও না (নির্দিষ্ট দফতর নেই)।

কমনওয়েলথ থেকে বহিস্কৃত সর্বশেষ দেশ কোনটি? – পাকিস্তান। (নোট-২২ মে ২০০৮ সদস্য পদ ফিরে পায়।)

কমনওয়েলথ

কমনওয়েলথ কী? – সাবেক ব্রিটিশ সাম্রাজ্যভুক্ত স্বাধীন এবং আশ্রিত দেশসমূহ নিয়ে গঠিত সংগঠন।

ব্রিটিশ কমনওয়েলথ এর পূর্ণ নাম কী? – কমনওয়েলথ অব নেশনস।

কমনওয়েলথ এর প্রারম্ভিক ধারণা কখন গৃহীত হয়? – ১৯২৬ সালে ইম্পেরিয়াল সম্মেলনে।

কমনওয়েলথ কত সালে প্রতিষ্ঠিত হয়? – ১৯৪৯ সালে। (১৯৩১ সালে ব্রিটিশ পার্লামেন্টে কর্তৃক অনুমোদিত আইন ‘স্ট্যাচু অব ওয়েস্ট মিনিস্টার’ এ উপনিবেশগুলোর পূর্ণ স্বাধীনতা দেয়া হয় এবং আনুষ্ঠানিকভাবে কমনওয়েলথ স্বতন্ত্র মর্যাদা লাভ করে।)

কমনওয়েলথ এর বর্তমান প্রধান (প্রতীকী) কে? – রানী দ্বিতীয় এলিজাবেথ।

কমনওয়েলথ এর সচিবালয় কোথায় অবস্থিত? – মার্লবরো হাউজ (পলমল), লন্ডন (১৯৬৫)।

কমনওয়েলথ এর বর্তমান সদস্য সংখ্যা কত? – ৫৩টি।

৪৮ বছর পর কোন দেশ কমনওয়েলথ ত্যাগ করে? – গাম্বিয়া (৩ অক্টোবর ২০১৩)।

কমনওয়েলথ এর সর্বশেষ সদস্য দেশ কোনটি? – রুয়ান্ডা (২৮ নভেম্বর ২০০৯)।

বাংলাদেশ সর্বপ্রথম কোন আন্তর্জাতিক সংস্থার সদস্যপদ লাভ করে? – কমনওয়েলথ (১৮ এপ্রিল, ১৯৭২)।

ব্রিটিশ শাসনাধীন বহিভুত কমনওয়েলথ-এর সদস্য দেশ কোনটি? – মোজাম্বিক, ১৯৯৫ সালে এবং রুয়ান্ড, ২৮ নভেম্বর ২০০৯।

কমনওয়েলথ ত্যাগকারী দেশগুলো কী কী? – পাকিস্তান (১৯৭২), মায়ানমার ও আয়ারল্যান্ড (১৯৪৮) এবং জিম্বাবুয়ে (২০০৩)।

১৯৯৫ সালে নাইজেরিয়াকে কমনওয়েলথ থেকে বহিস্কার করা হয় কেন? – সামরিক জান্তা কর্তৃক ৯ জন ব্যক্তিকে মৃত্যুদণ্ড দেয়ার শাস্তি স্বরূপ।

কমনওয়েলথভূক্ত কোন দেশের সদস্যপদ স্থগিত করা হয়েছিল? – নাইজেরিয়া (১১ নভেম্বর ১৯৯৫ – ২৯ মে ১৯৯৯), পাকিস্তান (১৮ অক্টোবর ১৯৯৯-২২ মে ২০০৪), ফিজি (৬জুন ২০০০-২০ ডিসেম্বর ২০০১)।

সাময়িক অভ্যুত্থানের কারণে বর্তমানে কোন দেশের সদস্যপদ স্থগিত করা হয়? – ফিজি, ১ সেপ্টেম্বর ২০০৯ – বর্তমান।

ব্রিটিশ উপনিবেশ হয়েও কোন দেশগুলো কমনওয়েলথের সদস্য হয়নি? – বাহরাইন, ইরাক, মিশর, জর্ডান, কুয়েত, মিয়ানমার, কাতার, সুদান, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, সংযুক্ত আরব আমিরাত ও ইয়েমেন।

কমনওয়েলথ সচিবালয় সালিশ আদালত-এর (CSAT) প্রেসিডেন্ট কে? – খন্দকার মাহমুদ উল-হাসান (১ জানুয়ারি ২০০৯ – বর্তমান)।

CPA বা Commonwealth Parliamentary Association প্রতিষ্ঠিত হয় কবে? – ১৯১১ সালে।

CMAG এর পূর্ণরূপ কী? – Commonwealth Ministerial Action Group. (প্রতিষ্ঠা কাল ১৯৯৫)

কমনওয়েলথ দিবস কোনটি? – মার্চ মাসের দ্বিতীয় সোমবার।

কমনওয়েলথভুক্ত দেশসমূহের ডিপ্লোমেটিক কর্মকর্তাকে কী বলে? – হাইকমিশনার।

কমনওয়েলথ কবে পাকিস্তানের সদস্যপদ স্থগিত করে? – ২২ নভেম্বর ২০০৭ সালে। (স্থগিতাদেশ প্রত্যাহার করা হয় ২২ মে ২০০৮)

সর্বপ্রথম কমনওয়েলথ শীর্ষ সম্মেলন কবে, কোথায় অনুষ্ঠিত হয়? – ১৯৬৬, লন্ডন, যুক্তরাজ্য।

সর্বশেষ কমনওয়েলথ শীর্ষ সম্মেলন কবে, কোথায় অনুষ্ঠিত হয়? – ১৫-১৭ নভেম্বর, ২০১৩; কলম্বে, শ্রীলংকা (২৩তম)।

২৪তম কমনওয়েলথ শীর্ষ সম্মেলন কবে, কোথায় অনুষ্ঠিত হয়? – ২৭-২৯ নভেম্বর ২০১৫ সালে, মাল্টা, বিরগো।

NAM (জোট নিরপেক্ষ আন্দোলন)

NAM কী? – Non Aligned Movement.

NAM আনুষ্ঠানিকভাবে প্রতিষ্ঠিত হয় কত সালে? – ১৯৬১ সালে, বেলগ্রেড যুগোশ্লাভিয়ায়।

জোট নিরপেক্ষ আন্দোলনের (NAM) উদ্যোক্তা কারা? – যুগোস্লাভিয়ার মার্শাল টিটো, ভারতের জওহরলাল নেহেরু, মিসরের জামাল আব্দেল নাসের, ইন্দোনেশিয়ার ড. আহমেদ সুকর্ণ।

NAM এর প্রথম সম্মেলন অংশগ্রহণকারী দেশ ছিল কতটি? – ২৫টি।

NAM গঠনের ফোরম গঠিত হয় কোন সম্মেলনে? – বান্দুং সম্মেলনে, ইন্দোনেশিয়া (১৯৫৫)।

NAM-এর বর্তমান সদস্য সংখ্যা কত? – ১২০।

NAM-এর সর্বশেষ সদস্য দেশ দুটি কী কী? – আজারবাইজান ও ফিজি (২৫ মে ২০১১)।

বাংলাদেশ NAM-এর সদস্য পদ লাভ করে কবে? – ১৯৭২।

NAM-এর মূলনীতি কী কী? – (১) প্রত্যেকের ভৌগোলিক অখন্ডতা ও সার্বভৌমত্বের উপর পারস্পরিক শ্রদ্ধা প্রদর্শন; (২) অনাক্রমণ; (৩) শান্তিপূর্ণ সহাবস্থান; (৪) অন্য রাষ্ট্রের অভ্যন্তরীণ ব্যাপারে হস্তক্ষেপ না করা।

NAM-এর বার্তা সংস্থার নাম কী? – Nam News Network (NNN)

NNN প্রতিষ্ঠিত হয় কবে? – ১৭ এপ্রিল, ২০০৫।

NAM এর সদর দফতর কোথায়? – কুয়ালালামপুর, মালয়েশিয়া।

NAM-এর পর্যবেক্ষক দেশ ও সংস্থা কয়টি? – পর্যবেক্ষক দেশ- ১৭টি ও সংস্থা-৯টি।

সর্বপ্রথম NAM শীর্ষ সম্মেলন কবে, কোথায় অনুষ্ঠিত হয়? – ১৯৬১, বেলগ্রেড, যুগোশ্লাভিয়া।

১৬তম NAM শীর্ষ সম্মেলন কবে, কোথায় অনুষ্ঠিত হয়? – ২৬-৩১ আগস্ট ২০১২; তেহরান, ইরান।

১৭তম NAM শীর্ষ সম্মেলন কবে, কোথায় অনুষ্ঠিত হয়? – ২০১৫ সালে, কারাকাস, ভেনিজুয়েলা।

OIC

OIC-এর বর্তমান পূর্ণরূপ কী? – Organization of Islamic Co-operation.

OIC-এর প্রতিষ্ঠাকাকলীন পূর্ণরূপ কী ছিল? – Organization of Islamic Conference.

OIC-কত সালে প্রতিষ্ঠিত হয়? – ২১ আগস্ট, ১৯৬৯ (মরক্কোর রাজধানী রাবাতে)।

ইসলামিক সম্মেলন সংস্থার নাম পরিবর্তন করে কবে ইসলামিক সহযোগিতা সংস্থা রাখা হয়? – ২৮ জুন ২০২১ সালে।

OIC-এর সদর দফতর কোথায়? – জেদ্দা, সৌদি আরব।

OIC প্রতিষ্ঠিত হয় কোন ঘটনাকে কেন্দ্র করে? – আল-আকসা মসজিদের অগ্নি সংযোগকে কেন্দ্র করে (১৯৬৭ সালে)।

অমুসলিম কোন দেশটি OIC’র সদস্য পদের জন্য আবেদন করেন? – রাশিয়া।

আল কুদ্দুস কমিটি সদর দফতর কোথায়? – মরক্কোর রাবাতে।

OIC কর্তৃক প্রতিষ্ঠিত পরিচালিত Islamic University of Technology কোথায় অবস্থিত? – গাজিপুর।

মুসলিম প্রধান না হয়েও OIC-এর সদস্য দেশ কোনগুলো? – উগান্ডা (১২.১%), ক্যামেরুন (১৭.৯%), বেনিন (২৪.৪%), মোজাম্বিক (২২.৮%), গায়ানা (৭.২%) ও সুরিনাম (১৫.৯%)।

আল কুদ্দুস কমিটি কবে, কখন, কোন প্রেক্ষাপটে গঠিত হয়? – ইসরাইল কর্তৃক দখলকৃত আল আকসা মসজিদ উদ্ধারের লক্ষ্যে ১৯৭৫ সালে ১২-১৫ জুলাই সৌদি আরবে অনুষ্ঠিত পররাষ্ট্রমন্ত্রী সম্মেলনে এটি গঠন করা হয়।

আল কুদ্দুস কমিটির সদস্য সংখ্যা কত? – ১৬টি দেশ।

OIC-এর শীর্ষ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয় কত বছর পর পর? – তিন বছর।

OIC-এর অফিসিয়াল ভাষা কী? – আরবি, ইংরেজি ও ফ্রেঞ্চ।

OIC-এর বর্তমান সদস্য দেশ কত? – ৫৭টি রাষ্ট্র (প্রতিষ্ঠাকালীন সদস্য দেশ ২৫টি)।

OIC-এর সর্বশেষ সদস্য রাষ্ট্র কোন্‌টি? – আইভরি কোস্ট (৫৭তম, ২০০১)।

OIC-এর প্রথম মহাসচিব কে ছিলেন? – টেংকু আব্দুর রহমান (মালয়েশিয়া)।

OIC-এর মহাসচিবের মেয়াদকাল কত? – পাঁচ বছর। (পূর্বে ছিল চার বছর)

OIC-এর সদস্য দেশগুলোর ভোটে নির্বাচিত প্রথম মহাসচিব কে? – ড. একমেলেদ্দিন এহসানোগুল, তুরস্ক।

OIC-ভুক্ত দেশগুলো কবে ইসরাইলের সাতে সকল ধরনের রাজনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন করে? – ২৭ মে, ২০০১।

OIC-এর অঙ্গসংগঠন কয়টি ও কী কী? – ১১টি। (১) ইসলামিক সম্মেলন, (২) পররাষ্ট্রমন্ত্রী কাউন্সিল, (৩). স্টান্ডিং কমিটি, (৪) নির্বাহী কমিটি, (৫) আন্তর্জাতিক ইসলামী বিচার আদালত, (৬) মানবাধিকার বিষয়ক স্বাধীন স্থায়ী কমিশন, (৭) স্থায়ী প্রতিনিধি কমিটি, (৮) সাধারণ সচিবালয়, (৯) সাবসিডিয়ারি অর্গান, (১০) বিশেষায়িত ইনস্টিটিউট এবং (১১) অনুমোদিত ইনস্টিটিউট।

সম্প্রতি OIC কোন দেশের সদস্য পদ স্থগিত করে? – সিরিয়া (১৫ আগস্ট ২০১২)।

সর্বপ্রথম OIC-এর শীর্ষ সম্মেলন কবে, কোথায় অনুষ্ঠিত হয়? – ১৯৬৯, রাবাত, মরক্কো।

১২তম OIC-এর শীর্ষ সম্মেলন কবে, কোথায় অনুষ্ঠিত হয়? – ফেব্রুয়ারি ২০১৩; কায়রো, মিশর।

আরব লীগ

আরব লীগ প্রতিষ্ঠিত হয় কবে? – ২২ মার্চ, ১৯৪৫ সালে।

আরব লীগের বর্তমান সদস্য কতটি? – ২২টি। আলজেরিয়া, বাহরাইন, লেবানন, লিবিয়া, মরক্কো, ওমান, মিশর, ইরাক, জর্দান, কুয়েত, সৌদি আরব, ফিলিস্তিন, কাতার, ক্যামেরুন, জিবুতি, মৌরিতানিয়া, সিরিয়া, সুদান, সোমালিয়া, ইয়েমেন, সংযুক্ত আরব আমিরাত ও তিউনিশিয়া।

মধ্যপ্রাচ্যের কোন দেশটি আরব লীগের সদস্য নয়? – ইরান।

আরব লীগের প্রতিষ্ঠাকালীন সদস্য দেশ কয়টি? – ৭টি। (ইরাক, মিশর, সিরিয়া, লেবানন, জর্ডান, ইয়েমেন ও সৌদি আরব)

আরব লীগের সদর তফতর কোথায় অবস্থিত? – কায়রো। (উল্লেখ্য ১৯৭৯-১৯৯০ পর্যন্ত সদর দফতর তিউনিসে ছিল)

আরব লীগ থেকে মিশরকে বহিস্কার করা হয়েছিল কবে? – ১৯৭৯ সালে। ১৯৯০ সালে পুনরায় সদস্য পদ ফিরিয়ে দেয়া হয়।

মিশরকে আরব লীগ থেকে কেন বহিস্কার করা হয়েছিল? – ক্যাম্পডেভিট চুক্তি স্বাক্ষরের জন্য।

আরব লীগের প্রথম মহাসচিব কে ছিলেন? – আবদেল রহমান আযম (মিশর); (২২ মার্চ ১৯৪৫ – সেপ্টেম্বর ১৯৫২)

আরব লীগের পর্যবেক্ষক দেশ কী কী? – ইরিত্রিয়া, ব্রাজিল, ভারত ও ভেনিজুয়েলা।

ভূমধ্যসাগরীয় ইউনিয়ন

ভূমধ্যসাগরীয় ইউনিয়নের আহ্বায়ক/রূপকার কে? – নিকোলাস সার্কোজি, ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট।

ভূমধ্যসাগরীয় ইউনিয়ন কবে গঠিত হয়? – ১৩ জুলাই ২০০৮।

ভূমধ্যসাগরীয় ইউনিয়নের সদর দফতর কোথায়? – বার্সেলোনা, স্পেন।

ভূমধ্যসাগরীয় ইউনিয়ন-এর সদস্য দেশ কতগুলো ও কী কী? – ৪৩টি। ইইউভুক্ত ২৭টি দেশ এবং আলবেলিয়া, আলজেরিয়া, বসনিয়া-হার্জেগোভিনা, ক্রোয়েশিয়া, মিশর, ইসরাইল, জর্ডান, লেবানন, মৌরিতানিয়া, মোনাকো, মান্টিনিগ্রো, মরক্কো, ফিলিপাইন, সিরিয়া, তিউনিসিয়া ও তুরস্ক।

No comments