বইয়ে খোঁজার সময় নাই
সব কিছু এখানেই পাই

ইন্টারনেট ব্যবহারের প্রয়োজনীয়তা জানিয়ে বোনকে চিঠি

মনে করো, তুমি সাবিহা। তোমার বোনের নাম কলি। ইন্টারনেট ব্যবহারের প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে মতামত জানিয়ে তোমার বোনকে একটি চিঠি লেখো। 


আজিমপুর, ঢাকা
১৮ই আগস্ট, ২০২০

প্রিয় কলি,
শুভেচ্ছা নিস। গতকাল তোর চিঠি পেলাম। তুই ভালো আছিস জেনে প্রীত হলাম। তুই গত চিঠিতে আমার কাছে ইন্টারনেট ব্যবহারের প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে জানতে চেয়েছিলি। আমি আজ তোকে ইন্টারনেট ব্যবহারের প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে লিখব। 

বর্তমান বিশ্বে সর্বাধুনিক প্রযুক্তির নাম ইন্টারনেট। ইন্টারনেট তথ্যপ্রযুক্তির ক্ষেত্রে যুগান্তকারী বিপ্লব সাধন করেছে। ইন্টারনেটের মাধ্যমে মানুষ পৃথিবীর এক প্রান্ত থেকে অপর প্রান্তে ছবিসহ যাবতীয় তথ্য নিমিষেই সরবরাহ করতে পারছে। ইন্টারনেটের প্রয়োজনীয়তা অসীম। ইন্টারনেটের মাধ্যমে আজকাল অসম্ভবকে সম্ভব করা যাচ্ছে। তথ্যপ্রেরণ ও গ্রহণ থেকে শুরু করে বিশ্বের সকল প্রান্তের মানুষের সাথে আড্ডা, শিক্ষা, বিপণন, সম্মেলন, অফিস ব্যবস্থাপনা, বিনোদন ইত্যাদি ইন্টারনেটের সাহায্যে করা যাচ্ছে। মাল্টিমিডিয়া বিকাশের সাথে সাথে প্রতিদিন এর সম্ভাবনা আরও বাড়ছে। বাংলাদেশের একজন লোকের পক্ষে ইন্টারনেটের মাধ্যমে নিউইয়র্কের কোনো ওপেন কনসার্ট উপভোগ করা সম্ভব হচ্ছে। বাংলাদেশের একজন রোগী লন্ডনের একজন ডাক্তারের পরামর্শ নিতে পারছে। ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে একদেশে বসে অন্যদেশের জিনিসপত্র কেনাকাটা করা সম্ভব হচ্ছে। মহাকাশ গবেষণা করা সম্ভব হচ্ছে। এছাড়া ই-মেইলসহ ইন্টারনেটের রয়েছে বহুবিধ ব্যবহার। বাস্তবতা হলো- ইন্টারনেট সারাবিশ্বের যোগাযোগ ব্যবস্থার সাথে আজ নিবিড়ভাবে জড়িয়ে রয়েছে। ইন্টারনেট ব্যবহারে জীবনযাত্রা অত্যন্ত সহজ হয়ে পড়েছে। চোখের পলকেই সব কাজ করা সম্ভব হচ্ছে। তাই ইন্টারনেট ব্যবহারের প্রয়োজনীয়তা অপরিসীম। 

আজ আর নয়, সবসময় ভালো থাকিস। আব্বা-আম্মাকে আমার সালাম দিস। 

ইতি-
তোর আপু
সাবিহা

No comments